ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী নয়, আদিবাসী হিসেবে স্বীকৃতির দাবি

image

প্রকাশ: ২০২০/০১/২০ ০২:৫৯

আদিবাসীদের ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী হিসেবে নয়, আদিবাসী হিসেবে সাংবিধানিক স্বীকৃতির জোর দাবি উঠেছে। শুক্রবার (১০ জানুয়ারী), সকাল ১১টায় রাজশাহীর জামিল আকতার মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সভায় জাতীয় আদিবাসী পরিষদের কেন্দ্রীয় সভায় সাংসদ ফজলে হোসেন বাদশা এ দাবি জানান।

সংগঠনটির কেন্দ্রীয় সভাপতি রবীন্দ্রনাথ সরেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, ‘পাহাড়ের আদিবাসীদের মতোই সমতলের আদিবাসীদের আর্থ-সামাজিক, রাজনৈতিক অবস্থা অত্যন্ত শোচনীয়। সমতলের আদিবাসী মানুষ ক্রমশ ভূমিহীন হয়ে পড়ছে। তাদের ভূমি রক্ষায় পৃথক ভূমি কমিশন ও অন্যান্য মৌলিক অধিকার প্রতিষ্ঠায় মন্ত্রণালয় গঠন করতে হবে।’

জাতীয় আদিবাসী পরিষদ শক্তিশালী হলে কেবল আদিবাসী অধিকার প্রতিষ্ঠিত হবে না বরং সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির বাংলাদেশ গঠনে মূল্যবান ভূমিকা রাখবে। সাংসদ পরিষদকে আরও শক্তিশালী করা প্রয়োজন বলে মনে করেন।

কেন্দ্রীয় সভাপতি রবীন্দ্রনাথ সরেন বলেন, ‘আদিবাসীদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় জাতীয় আদিবাসী পরিষদ প্রতিষ্ঠাকাল থেকে সংগ্রামী ভূমিকা রাখছে। সংগঠনের পরিসর বাড়াতে আগামী ৩০ এপ্রিল থেকে সদস্য সংগ্রহ, সকল শাখা কমিটির সম্মেলন এবং জুন মাসে কেন্দ্রীয় সম্মেলন করা হবে।’

সভায় সংগঠনটির কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সরকারের এনজিও ব্যুরোর আদিবাসী নামে নিবন্ধিত এনজিও গুলোর নাম পরিবর্তনের নির্দেশনা জারির নিন্দা এবং নির্দেশনা প্রত্যাহারের দাবি জানান।

সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জাতীয় আদিবাসী পরিষদের অন্যতম উপদেষ্টা রফিকুল ইসলাম পিয়ারুল, সাধারণ সম্পাদক সবিন চন্দ্র মুন্ডা, দেবাশীষ প্রামানিক দেবু, প্রেসিডিয়াম সদস্য খ্রিষ্টীনা বিশ্বাস, অ্যাড. বাবুল রবিদাস, নারী নেত্রী বিচিত্রা তির্কী প্রমুখ।

শেয়ার করুন

কমেন্টবক্স

আপনিও স্ব মতামত দিন

বাছাইকৃত সংবাদ