আদিবাসীদের ভাষা সংরক্ষণ, ভূমি সমস্যা নিরসন, সরকারি চাকরিতে কোটা পুনর্বহালসহ ৫ দফা দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে উত্তরবঙ্গ আদিবাসী ফোরাম। সোমবার চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রেসক্লাবে এই সাংবাদিক সম্মেলন হয়। এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন উত্তরবঙ্গ আদিবাসী ফোরামের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট প্রভাত টুডু।

লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, উত্তরাঞ্চলে বসবাসরত বিভিন্ন সম্প্রদায়ভূক্ত আদিবাসী জনগোষ্ঠীর মানুষ সমাজের মূলস্রোত থেকে অনগ্রসর ও পিছিয়ে রয়েছে। আদিবাসী শিশুরা যাতে তাদের নিজস্ব মাতৃভাষায় শিক্ষার সুযোগ লাভ করে সে জন্য সরকারের পদক্ষেপের প্রেক্ষিতে ছয়টি জনগোষ্ঠীর শিশুদের পাঠ্যপুস্তক মুদ্রণ হলেও সাঁওতাল শিশুদের বই এখন পর্যন্ত প্রণয়ন হয়নি।

সংবাদ সম্মেলন থেকে ২০২২ সালের মধ্যে সাঁওতাল শিশুদের মাতৃভাষায় বই প্রাপ্তি নিশ্চিত করার দাবি জানানো হয়।

আদিবাসীরা নিজভূমে পরবাসী জীবনযাপন করছে। ভূমিকে কেন্দ্র করে আদিবাসীরা নির্যাতিত হচ্ছেন। এমনকি খুন নিপীড়নের শিকার হচ্ছেন বলেও জানানো হয়।

সাংবাদিক সম্মেলনে সরকারি চাকরিতে আদিবাসী কোটার পুনর্বহাল, করোনা টিকা প্রাপ্তি নিশ্চিত করাসহ ৫ দফা দাবি বাস্তবায়নের জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানানো হয়।

সম্মেলনে উত্তরবঙ্গ আদিবাসী ফোরামের সভাপতি হিংগু মুর্মু, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক কর্ণেলিউশ মুর্মু, আদিবাসী ফোরামের নেতা মদন মুর্মু, কুটিলা রাজোয়ার, বিষণ মিজন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here