অপহৃত শিপ্রা রায়। ছবি : সংগৃহীত

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলায় বর্মণ আদিবাসী কিশোরী অপহরণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় শনিবার দুপুরে একজনকে আটক করেছে কালিয়াকৈর থানা পুলিশ।

অপহৃতা স্কুলছাত্রী উপজেলার কালামপুর এলাকার সুব্রত রায়ের মেয়ে। সে স্থানীয় এস এম কিন্ডার গার্টেনের ৮ম শ্রেণীর ছাত্রী।

ভুক্তভোগীর পরিবার ও অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কুন্দাঘাটা এলাকার মৃত. লাল মিয়ার ছেলে মো. শওকত হোসেন দীর্ঘদিন ধরে ওই স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। তাঁর কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ক্ষিপ্ত হন শওকত হোসেন। গত শুক্রবার রাতে শিপ্রা বাড়ির পাশের একটি অনুষ্ঠান থেকে ফিরছিল। ফেরার পথে রাত ৮টার দিকে শওকত হোসেন তাঁর সহযোগী জিয়ারুল ইসলামসহ আরও ২/৩ জন সিএনজি যোগে তাঁর গতিরোধ করে অপহরণ করে।

এ ঘটনায় শিপ্রার বাবা সুব্রত রায় বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। পরে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য শনিবার দুপুরে জিয়ারুল নামের একজনকে আটক করা হয়।

তবে শওকত কালিয়াকৈর পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেমের চাচাতো ভাই হওয়ায় ভুক্তভোগী পরিবার নানা ধরণের হুমকি ধামকির সম্মুখিন হচ্ছেন বলে অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে।


কালিয়াকৈর থানার উপ-পরিদর্শক মাজহারুল ইসলাম জানান, ‘এ ঘটনায় কালিয়াকৈর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করা হয়েছে।’

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here